তুলসী গাছের বৈশিষ্ট্য

তুলসীর বৈশিষ্ট্য এর ছবি

তুলসী গাছ যা রোগ নিরাময়ের প্রাকৃতিক সুরক্ষার দেওয়াল হিসেবে কাজ করে। আপনাদের হয়তোবা অনেকের প্রশ্ন যে তুলসী গাছের বৈশিষ্ট্য  বা এর আকার আকৃতি কেমন।

তাই এখন আমরা তুলসীর বৈশিষ্ট্য বা তুলসী গাছ সম্পর্কে জানব। আশা করি তুলসী গাছের বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে লেখা এই প্রতিবেদন সম্পূর্ণ পড়বেন।

তুলসী গাছের বৈশিষ্ট্য?

তুলসী যা হলি বেসিল নামেও পরিচিত, একটি সুগন্ধি উদ্ভিদ যা ভারতের স্থানীয় এবং দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া জুড়ে ব্যাপকভাবে চাষ করা হয়। এটি হাজার হাজার বছর ধরে আয়ুর্বেদিক ওষুধে এর ঔষধি গুণাবলীর জন্য ব্যবহৃত হয়ে আসছে। এখানে তুলসী গাছের কিছু বৈশিষ্ট্য রয়েছে:

তুলসী গাছের নাম সমূহ?

  • তুলসী গাছের প্রচলিত নাম: তুলসী।
  • তুলসী গাছের ইংরেজি নাম:Holy basil.
  • তুলসী গাছের আয়ুর্বেদিক নাম: কালো ও সবুজ তুলসী।
  • তুলসী গাছের বৈজ্ঞানিক নাম:ocimum sancium Linn.
  • পরিবার:Lamiaceae.

তুলসী গাছের রাসায়নিক উপাদান?

তুলসীর পাতায় বা গাছে যেসব রাসায়নিক  উপাদান থাকে ইউজিনোল, মিথাইল ইজিনোল, সেনিওল ও লিনালোল ইত্যাদি রাসায়নিক উপাদান থাকে।

তুলসী গাছের পাতা অন্যান্য বৈশিষ্ট্য?

পাতা: তুলসী গাছের পাতা সবুজ, ডিম্বাকার আকৃতির এবং সামান্য দানাদার। এগুলি অত্যন্ত সুগন্ধযুক্ত এবং একটি স্বতন্ত্র মশলাদার, তীব্র ঘ্রাণ রয়েছে।

কান্ড: তুলসী গাছের কান্ড পাতলা এবং খাড়া, ৬০ সেমি পর্যন্ত লম্বা হয়।

ফুল: তুলসী গাছে লম্বা ডাঁটায় ছোট, বেগুনি ফুল ফোটে, যা গ্রীষ্মকালে ফোটে।স্বাদ: তুলসি একটি উষ্ণ, মিষ্টি এবং সামান্য তিক্ত স্বাদ আছে।

ঔষধি গুণাগুণ: তুলসি তার অনেক ঔষধি গুণের জন্য পরিচিত। এটি একটি অ্যাডাপ্টোজেন হিসাবে বিবেচিত হয়, যার অর্থ এটি শরীরকে চাপের সাথে মানিয়ে নিতে সহায়তা করে। এছাড়াও এটি অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি, অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল, অ্যান্টি-ভাইরাল এবং অ্যান্টি-ফাঙ্গাল। এটি স্বাস্থ্যকর হজমকে উন্নীত করে, জ্বর কমায় এবং মাথাব্যথা উপশম করে।

ধর্মীয় তাৎপর্য: তুলসীকে হিন্দুধর্মে একটি পবিত্র উদ্ভিদ হিসাবে বিবেচনা করা হয় এবং প্রায়শই উঠান এবং মন্দিরে রোপণ করা হয়। এটি আধ্যাত্মিক এবং নিরাময় ক্ষমতা আছে বলে বিশ্বাস করা হয়।

চাষ: তুলসী জন্মানো সহজ এবং বাড়ির ভিতরে ও বাইরে চাষ করা যায়। এটি উষ্ণ, আর্দ্র অবস্থা পছন্দ করে এবং নিয়মিত জল দেওয়া প্রয়োজন। এটি প্রায়শই বাগানে একটি শোভাময় উদ্ভিদ হিসাবে ব্যবহৃত হয় এবং এর ঔষধি বৈশিষ্ট্যগুলির জন্যও এটি জন্মায়।

জাত: কৃষ্ণ তুলসী, রাম তুলসী এবং ভানা তুলসী সহ তুলসীর বিভিন্ন প্রকার রয়েছে। প্রতিটি জাতের কিছুটা আলাদা শারীরিক বৈশিষ্ট্য এবং ঔষধি বৈশিষ্ট্য রয়েছে।

জলবায়ু: তুলসি একটি গ্রীষ্মমন্ডলীয় উদ্ভিদ এবং উষ্ণ আবহাওয়া পছন্দ করে। এটি 20-35 ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে তাপমাত্রায় সর্বোত্তম এবং উচ্চ আর্দ্রতা সহ এলাকায় জন্মানো যায়।

মাটি: তুলসী ভাল নিষ্কাশনযুক্ত মাটি পছন্দ করে যা জৈব পদার্থ সমৃদ্ধ। এটি বেলে দোআঁশ, এঁটেল দোআঁশ এবং লাল মাটি সহ বিভিন্ন মাটিতে জন্মাতে পারে।

বংশবিস্তারঃ তুলসী বীজ বা কাটিং থেকে বংশবিস্তার করা যায়। বীজ সরাসরি মাটিতে বপন করা যায় বা বাড়ির ভিতরে শুরু করা যায় এবং পরে রোপণ করা যায়। পরিপক্ক গাছপালা থেকে কাটিং নেওয়া যায় এবং জল বা মাটিতে শিকড় দেওয়া যায়।

রন্ধনসম্পর্কীয় ব্যবহার: তুলসী অনেক ভারতীয় খাবার যেমন স্যুপ, স্ট্যু এবং তরকারিতে একটি রন্ধনসম্পর্কীয় ভেষজ হিসাবে ব্যবহৃত হয়। এটি চা তৈরিতেও ব্যবহৃত হয়, যা অনেক স্বাস্থ্য উপকারী বলে জানা যায়।

অপরিহার্য তেল: তুলসী অপরিহার্য তেল পাতা থেকে নিষ্কাশিত হয় এবং অনেক থেরাপিউটিক ব্যবহার আছে। এটি অ্যারোমাথেরাপিতে চাপ, উদ্বেগ এবং বিষণ্নতা থেকে মুক্তি দিতে ব্যবহৃত হয়। এটি ম্যাসেজ তেল, ত্বকের ক্রিম এবং চুলের যত্নের পণ্যগুলিতেও ব্যবহৃত হয়।

কীটনাশক বৈশিষ্ট্য: তুলসীতে প্রাকৃতিক কীটনাশক বৈশিষ্ট্য রয়েছে এবং এটি জৈব কীটপতঙ্গ নিয়ন্ত্রণে ব্যবহৃত হয়। এটি মশা, মাছি এবং অন্যান্য পোকামাকড় তাড়াতে বলা হয়।

আয়ুর্বেদিক ওষুধ: তুলসি আয়ুর্বেদিক ওষুধের একটি গুরুত্বপূর্ণ ভেষজ এবং শ্বাসকষ্ট, হজমের সমস্যা এবং ত্বকের ব্যাধি সহ বিভিন্ন রোগের চিকিৎসায় ব্যবহৃত হয়। এটি সামগ্রিক স্বাস্থ্য এবং সুস্থতার প্রচারের জন্য একটি টনিক হিসাবেও ব্যবহৃত হয়।

উপসংহার

আশা করি তুলসীর বৈশিষ্ট্য এই প্রতিবেদন করে আপনারা সুন্দরভাবে তুলসী কাজ সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। অপরকে দেখার সুযোগ করে দিবেন।

শেষ কথা: আসা করি আজকের এই প্রতিবেদনটি আপনার কাছে খুব ভালো লেগেছে। আপনার সুস্বাস্থ্য কামনা করছি। আমাদের ওয়েবসাইটে প্রতিদিন তথ্যবহুল প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়। তাই আমাদের ওয়েবসাইটটি নিয়মিত ভিজিট করুন।  আসসালামুয়ালাইকুম, ধন্যবাদ।

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

এই ওয়েবসাইটের নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url